বিশেষ সংবাদ

সোনার আইসক্রিম, দাম ৭ লাখ টাকা

তীব্র গরমে স্বস্তি পেতে আইসক্রিমের বিকল্প কিছু নেই। তবে যদি বলা হয়, এক আইসক্রিমেরই দাম ৭ লাখ টাকার বেশি (৬ হাজার ৬৯৬ ডলার), তাহলে চোখ কপালে উঠবে। এমন আইসক্রিম কিন্তু সত্যিই বাজারে রয়েছে। সবচেয়ে বেশি দামের আইসক্রিম হিসেবে গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসের খাতায়ও নাম লিখিয়েছে সেটি।

গত বৃহস্পতিবার গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, আইসক্রিমটির নাম ‘বিয়াকুয়া’। বানিয়েছে জাপানের আইসক্রিম প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান সিলাটো। আসলে আইসক্রিমটি তৈরিতে এমন কিছু উপাদান ব্যবহার করা হয়েছে, যেগুলো চাইলেই হাতের নাগালে পাওয়া যায় না। আর উপাদানগুলোর দামও অনেক বেশি। যেমন, একধরনের ছত্রাক। এটা পাওয়া যায় ইতালিতে। এই ছত্রাকের প্রতি কেজির দাম ১৬ লাখ টাকার বেশি। আইসক্রিমটিতে রয়েছে সোনার পাতাও। এই সোনা খাওয়া যায়।

সবচেয়ে দামি আইসক্রিম বানানোই শুধু সিলাটোর লক্ষ্য ছিল না। তারা চেয়েছিল, ইউরোপ ও জাপানে তৈরি বিভিন্ন উপাদান মিশিয়ে বিশেষ এক আইসক্রিমের রূপ দিতে। এর দায়িত্ব দেওয়া হয়েছিল তাদাইয়োশি ইমাদাকে। তিনি জাপানের ওসাকা শহরের রেস্তোরাঁ রিভির প্রধান পাচক।

আইসক্রিমটির একটি ভিডিও গত বুধবার টুইটারে শেয়ার করেছে গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডস। সেখানে দেখা যায়, কালো একটি বাক্সের মধ্যে ছোট্ট বয়ামে রাখা আইসক্রিমটি। দেখতে বেশ নজরকাড়া। এমনকি আইসক্রিম খাওয়ার রুপালি চামচটির জন্য দেওয়া হয়েছে আলাদা একটি মোড়ক।

এদিকে গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসে নাম লিখিয়েই থেমে থাকতে চায় না সিলাটো। তাদের লক্ষ্য আরও দামি আইসক্রিম তৈরি করা।

Related posts

আজ চকলেট দিবস – চকলেট তখন পানীয় হিসেবে পান করা হতো

Rubaiya Tasnim

রিলের নেশায় স্টিয়ারিং ছেড়ে চলন্ত গাড়ির ছাদে চালক 

Rishita Rupa

‘মুন্নাভাই এমবিবিএস’কেও হার মানায়! মেডিক্যাল পরীক্ষায় কারচুপি

Megh Bristy

Leave a Comment