ইসলাম ধর্ম

স্বর্ণালঙ্কার পরানো কি জায়েজ ছেলেশিশুকে

Pickynews24

বিয়ের সময় বরকে স্বর্ণালঙ্কার উপহার দেওয়ার প্রচলন আছে আমাদের সমাজে। এছাড়া মেয়েশিশুদের পাশাপাশি ছেলেশিশুদেরও স্বর্ণালঙ্কার উপহার দেওয়া হয় বিভিন্ন অনুষ্ঠান বা দিবস উপলক্ষে। পুরুষ বা ছেলেশিশু স্বর্ণালঙ্কার উপহার পেলে এর মালিক তারাই হবেন অর্থাৎ সম্পদ হিসেবে এটা তাদের মালিকানাভুক্ত হবে। কিন্তু স্বর্ণালঙ্কার পরিধান করা তাদের জন্য জায়েজ হবে না।

ইসলামে পুরুষের জন্য স্বর্ণালঙ্কার পরিধান করা জায়েজ নয়। রাসুল (সা.) বলেছেন,

حرم لباس الحرير و الذهب على ذكور أمتي و أحل لأناثهم
আমার উম্মতের পুরুষদের জন্য স্বর্ণ ও রেশমি কাপড় ব্যবহার করা হারাম, নারীদের জন্য জায়েজ। (সুনানে তিরমিজি:১৭২০)

আল্লামা মুরগিনানি তার বিখ্যাত ফিকহের কিতাব ‘হেদায়া’য় বলেছেন, ‘ছেলে শিশুদের স্বর্ণ ও রেশমের পোশাক পরিধান করানো বৈধ নয়। যেহেতু এটা পুরুষদের জন্য হারাম, যা পরিধান করা হারাম, পরিধান করানোও হারাম। যেমন মদ নিজে খাওয়া হারাম, কাউকে খাওয়ানোও হারাম।’ (হেদায়া: ৪/৪৫৭)

রদ্দুল মুহতার কিতাবে আল্লামা ইবনে আবেদিন (রহ.) বলেছেন, যে হাদিসে স্বর্ণ ও রেশমি কাপড় ব্যবহার হারাম বলা হয়েছে, সেখানে সেটাকে শুধু প্রাপ্তবয়স্কদের জন্য বিশেষায়িত করা হয়নি। তাই শিশুর জন্যও স্বর্ণালঙ্কার ও রেশমি কাপড় পরিধান করা হারাম হবে এবং তার অভিভাবক বা যারা তাকে সেগুলো পরাবে, তাদের গুনাহ হবে। (রদ্দুল মুহতার: ১/ ২১২)

তাই শিশু যদি স্বর্ণালঙ্কার উপহার পায়, সেটা তাকে পরানো যাবে না। তবে অলঙ্কার বিক্রি করে তার জন্য সেই অর্থ খরচ করা যাবে বা তাকে অন্য কিছু কিনে দেওয়া যাবে।

Related posts

লক্ষ্মীপুরে ১০ মাসে কুরআনে হাফেজ

Samar Khan

রোজা থাকার কথা ভুলে গিয়ে কোনো কিছু খেয়ে ফেললে করণীয় কী?

Asma Akter

মানুষকে পুনরায় জীবিত করবে

Asma Akter

Leave a Comment