বাংলাদেশে

লঞ্চ থেকে মেঘনায় ঝাঁপ, চাকরিতে যোগ দেয়া হলো না যুবকের

চাকরিতে যোগ দিতে লঞ্চযোগে ঢাকার উদ্দেশ্যে রওনা হয়েছিলো যুবক শেখ রেফাত মাহমুদ সাদ। অজ্ঞাত কারণে মাঝরাতে লঞ্চ থেকে নদীতে ঝাঁপ দিয়েছেন ওই যুবক।

ঘটনার চারদিন পর সোমবার সকালে মেহেন্দীগঞ্জের মেঘনা নদী থেকে সাদ’র মরদেহ উদ্ধার করা হয়। এর আগে গত ৭ এপ্রিল দিবাগত রাত দেড়টার দিকে ঢাকাগামী এমভি শুভরাজ-৯ লঞ্চে এ ঘটনা ঘটে। শেখ রেফাত মাহমুদ সাদ বরিশাল নগরীর ১৯নং ওয়ার্ডের কালিবাড়ি রোড এলাকার বাসিন্দা ঠিকাদার শেখ আসলাম মাহমুদের ছেলে।

কোতোয়ালি মডেল থানার ওসি মো. আনোয়ার হোসেন জানান, কী কারণে সাদ নদীতে ঝাঁপ দিয়েছিলেন তার সঠিক কারণ উদ্ঘাটনের জন্য কাজ করছে পুলিশ।

নিহতের বাবা আসলাম মাহমুদ বলেন, সরকারি ব্রজমোহন কলেজ থেকে হিসাববিজ্ঞানে মাস্টার্স সম্পন্ন করার পর ঢাকার বেসরকারি একটি প্রতিষ্ঠানে চাকরির জন্য যাচ্ছিল সাদ। সবকিছুই স্বাভাবিক ছিল। লঞ্চে ওঠার পর রাতে লঞ্চে বসেও মোবাইল ফোনে কথা হয়েছে। এরপর রাত সাড়ে ১১টার পর আর মোবাইলে পাচ্ছিলাম না। শনিবার ওর চাকরিতে যোগ দেওয়ার কথা ছিল। কিন্তু তা আর হলো না।

Related posts

বাংলাদেশের বিলুপ্ত প্রায় দশটি পেশা

Megh Bristy

গুলিস্তানে বাসে আগুন ভরদুপুরে !

Megh Bristy

সুপারশপে গরুর মাংস বিক্রি হচ্ছে ১২০০ টাকায়!

Megh Bristy

Leave a Comment